দুইটি প্রতিষ্ঠানকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি:

কিশোরগঞ্জের করিমগঞ্জে দ্রব্যমূল্যের উর্ধ্বগতি নিয়ন্ত্রণে বাজার মনিটরিং এবং করোনা ভাইরাসের বিস্তার রোধে জনসচেতনতা মূলক কার্যক্রমের অংশ হিসেবে করিমগঞ্জ উপজেলা বৃহস্পতিবার (১৩ আগস্ট) দুপুরে পরিচালিত জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর কর্তৃক পরিচালিত অভিযানে মোট ২টি প্রতিষ্ঠানকে মোট ১০ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে।কোন অসাধু ব্যবসায়ী যেন বাজারে অস্থিরতা সৃষ্টি করতে না পারে,এ জন্যে কঠোর নজরদারি করা হচ্ছে।

ভোক্তা অধিদপ্তর সূত্র জানায় উপজেলার বিভিন্ন বাজারে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে রাখতে নিয়মিত অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে।

অভিযান পরিচালনা করেন সহকারী পরিচালক জাতীয় ভোক্তা সংরক্ষণ অধিদপ্তর কিশোরগঞ্জের হৃদয় রঞ্জন বণিক,করিমগঞ্জ উপজেলা স্যানিটারী ইন্সপেক্টর ও নিরাপদ খাদ্য পরিদর্শক মোঃজিল্লুর রহমান ও সঙ্গীয় জেলা পুলিশ ফোর্স নিয়ে পরিচালিত ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের এই অভিযানে কয়েকটি প্রতিষ্ঠানে মূল্য তালিকা না থাকা,মেয়াদ উত্তীর্ণ পণ্য এবং মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষধ পাওয়ায় যা ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন ২০০৯ অনুযায়ী উপজেলার নিয়ামতপুর ইউনিয়নের নিয়ামতপুর বাজারে ২ টি প্রতিষ্ঠানকে মোট ১০ হাজার টাকার জরিমানা করা হয়েছে।

এ সময় একটি ফামের্সী মালিক কে ২ হাজার টাকা,কীটনাশক ও বীজ বিক্রেতাকে ৮ হাজার জরিমানা করা হয়।এছাড়াও বাজারের ব্যবসায়ীবৃন্দকে অনুমোদনহীন পণ্য এবং মেয়াদ উত্তীর্ণ পণ্য বিক্রিয় না করতে বলা হয়।

জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর কিশোরগঞ্জ জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক দুরন্ত নিউজকে বিষয়টি সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।জনস্বার্থে এ কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে বলেও জানান তিনি।