‘নূর হোসেনের আত্মত্যাগে পাওয়া গণতন্ত্র আজ অবরুদ্ধ’

নিজস্ব প্রতিবেদক:

‘শহীদ নূর হোসেন যে উদ্দেশ্যে বুকে-পিঠে গণতন্ত্র মুক্তি পাক লিখেছিলেন, যে গণতন্ত্রের জন্য নূর হোসেন জীবন দিয়েছিলেন সেই গণতন্ত্র আজ অবরুদ্ধ, জনগণের ভোটাধিকার আজো প্রতিষ্ঠিত হয়নি।’

আজ মঙ্গলবার (১০ নভেম্বর) সকাল ৮টার দিকে রাজধানীর গুলিস্তানে নূর হোসেন চত্বরে তার প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে এসব কথা বলেন ডাকসুর সাবেক ভিপি বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমানউল্লাহ আমান।

আমান উল্লাহ আমান বলেন, আজ নূর হোসেন দিবসে আমি তার প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করছি। শহীদ নূর হোসেন যে উদ্দেশ্য এবং লক্ষ্যকে সামনে রেখে বুকে-পিঠে লিখেছিলেন ‘গণতন্ত্র মুক্তি পাক’, যে গণতন্ত্রের জন্য নূর হোসেন জীবন দিয়েছিলেন সেই গণতন্ত্র আজ অবরুদ্ধ, জনগণের ভোটাধিকার আজো প্রতিষ্ঠিত হয়নি।

ডাকসুর এই সাবেক ভিপি বলেন, ৫২ সালের ভাষা আন্দোলন, ঊনসত্তরের গণঅভ্যুত্থান, ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধ, নব্বইয়ের স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনে অনেকেই শহীদ হয়েছেন। রক্তের বিনিময়ে’ সেদিন আমরা স্বৈরাচারের বিরুদ্ধে লড়াই করে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার করেছিলাম। শহীদ নূর হোসেন সেই উদ্দেশ্যেই রক্ত দিয়েছিলেন। আজ নূর হোসেন দিবসে আমাদের শপথ জনগণের ভোটাধিকার প্রতিষ্ঠার জন্য, গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের জন্য জনগণকে সঙ্গে নিয়ে নতুন করে আরও একটি গণঅভ্যুত্থান আমরা সৃষ্টি করব। জনগণের ভোটাধিকার এবং গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার হবে।

আমান বলেন, নব্বইয়ের স্বৈরাচারীবিরোধী আন্দোলনের মতো, বর্তমানে জগদ্দল পাথরের মতো চেপে বসা আওয়ামী সরকারের পতন হবে, গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার হবে। নূর হোসেন দিবসে এটাই হোক আমাদের শপথ।

দুরন্ত/১০নভেম্বর/আইপি